February 25, 2024

পরীক্ষার দিনে হাতে পৌঁছায়নি এডমিট কার্ড। পরীক্ষাতেই বসা হলো না শিলিগুড়ির কুড়ি জন পরীক্ষার্থীর

 

জীবনের প্রথম বোর্ড পরীক্ষায় ময়দানের নামার আগেই হার মেনে নিতে হবে এমনটা স্বপ্নেও হয়তো ভাবতেও পারেননি পরীক্ষার্থীরা। দীর্ঘ কোভিড প্রতিকূলতা পেরিয়ে মাধ্যমিক পরীক্ষা হলেও রাজ্যজুড়ে দেখা গেল এডমিট না মেলায় জেলায় জেলায় বহু পরীক্ষার্থীর পরীক্ষায় বসা হলো না এবারে। যার জেরে এ সমস্ত পড়ুয়াদের পিছিয়ে যাচ্ছে গোটা একটা বছর।

দু'বছর পর পরীক্ষার্থীদের সঙ্গে অভিভাবকেরা
(দু’বছর পর পরীক্ষা হলে ওরা)

পড়ুয়ারা আঙুল তুলছে স্কুল কর্তৃপক্ষের দিকে পাল্টা পড়ুয়াদেরই নাকি খোঁজ নেওয়া দরকার ছিল বলছে রাজ্য শিক্ষা দপ্তর। স্কুল কর্তৃপক্ষ যোগাযোগের চেষ্টা করলেও নাকি ফোন লাগেনি পড়ুয়াদের। আবার পড়ুয়াদের দাবি কোনরকম যোগাযোগই রাখেনি স্কুল।

শিলিগুড়ি শিক্ষা জেলাতেও এমন ২০জন পরীক্ষার্থী এডমিন না মেলায় এবারের মতো পরীক্ষায় বসতে পারেনি। এরমধ্যে শিলিগুড়ি বয়েজ স্কুলের তিন জন, বরদাকান্ত বিদ্যালয়ের তিনজন সহ রয়েছে মাটিগাড়া হর সুন্দর বিদ্যালয়ের ১৪ জন পড়ুয়া।

 

 

পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শনে এসে পড়ুয়া ও অভিভাবকদের সঙ্গে কথা বলছেন পুলিশ কমিশনার গৌরব শর্মা
(পরীক্ষা কেন্দ্র পরিদর্শনে এসে পড়ুয়া ও অভিভাবকদের সঙ্গে কথা বলছেন পুলিশ কমিশনার গৌরব শর্মা)
পরীক্ষার্থীদের মনোবল বৃদ্ধিতে স্কুল গেটে শিলিগুড়ির ডেপুটি মেয়র
(পরীক্ষার্থীদের মনোবল বৃদ্ধিতে স্কুলের গেটে শিলিগুড়ির ডেপুটি মেয়র)

শিলিগুড়ি শিক্ষা জেলার মাধ্যমিক পরীক্ষার কনভেনার রাম ছেত্রী বলছেন এদের মধ্যে অধিকাংশই বিগত বছরের অসফল বিদ্যার্থী। সিসি ক্যান্ডিডেটদের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে স্কুল কর্তৃপক্ষ, তবে লাভ হয়নি। পরীক্ষার্থীরা যদি অত্যন্ত পক্ষে সময় থাকতে স্কুলে খোঁজ নিত তাহলে হয়তো এই সমস্যা হতো না। এখন একটা বছরের অপেক্ষা করে পরবর্তী শিক্ষাবর্ষে ফের মাধ্যমিক দেওয়া ছাড়া কোনো উপায় নেই। এমন ঘটনায় হতাশ পড়ুয়া ও অভিভাবকেরা।

Content Protection by DMCA.com

You cannot copy content of this page