September 22, 2022

শিলিগুড়ি। ভিন রাজ্য আসাম থেকে বিহারে বেআইনি মদ পাচারের ছক বাঞ্চাল করে বড় সাফল্য বাগডোগরা সার্কেল আবগারি দপ্তরের। ৩০ লক্ষ টাকার বেআইনি মদ সমেত গ্রেপ্তার তিন। ধৃতদের নাম ওমবির, মাহিলালা সিং, উমেশ সিং। ধৃতরা প্রত্যেকেই উত্তরপ্রদেশের বাসিন্দা। পাচারের কায়দায় বদল এনে বাঁশ বোঝাই কন্টেনারের আড়ালে পৃথক চেম্বারে প্রচুর পরিমান বেআইনি মদ মজুদ করে পাচারের পরিকল্পনা কষে কারবারিরা। শিলিগুড়িকে করিডর করে ভিন রাজ্য আসাম ও বিহারের মাঝে চলছে এই বেআইনি মদের হাতবদলের কারবার। তবে লাগাতার চলা সক্রিয় অভিযানে শনিবার সাফল্য এলো আবগারি দপ্তরের হাতে।

জানা গিয়েছে গোপন সূত্রে পাওয়া খবরের ভিত্তিতে শিলিগুড়ির অদূরে ঘোষপুকুর ফুলবাড়ীর বাইপাস এলাকায় মুখ্য সড়কের ওপর অভিযান চালায় বাগডোগড়া সার্কেলের ওসি সুভাষ হালদারের নেতৃত্বে আবগারি দপ্তর। সূত্র মোতাবেক সন্দেহভাজন উত্তরপ্রদেশ নাম্বারের একটি বাঁশ বোঝাই কন্টেনারকে আটক করা হয়। কন্টেনারে তল্লাশি চালাতেই বাঁশের আড়ালে মজুদ বিপুল পরিমাণ বেআইনী মদ বেড়িয়ে আসে। আবগারি দপ্তরের বাগডোগড়া সার্কেল ওসি সুভাষ হালদার জানান আমাদের কাছে খবর ছিল উত্তরপ্রদেশের নাম্বারের বড় কন্টেনারে প্রচুর পরিমান বেআইনি মদ ভিন রাজ্য আসাম থেকে বিহারের পাচারের উদ্দেশ্যে যাচ্ছে। সেমতই শুক্রবার থেকে রাতভর অভিযান চালানো হয়। আটক কন্টেনারটিতে বাঁশের আড়ালে পৃথক চেম্বার করে প্রায় হাজার বোতল সহ সারি সারি মদের কার্টনগুলি মজুদ ছিল। তিনি জানান ৩৭০০ লিটার মদ বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। যার আনুমানিক বাজার মূল্য প্রায় ৩০লক্ষ টাকা। অরুণাচল প্রদেশ থেকে এই বিপুল পরিমাণ অবৈধ মদ আসাম হয়ে শিলিগুড়িকে করিডর করে বিহারের পাচারের উদ্দেশ্য ছিল পাচারাকারীদের।

তবে তাদের ছক ভেস্তে বেআইনি মদ সমেত পাচারকারীদের গ্রেপ্তার করা হয়। জানা গিয়েছে ধৃতরা মূলত ক্যারিয়ার হিসেবেই কাজ করে। রবিবার ধৃতদের শিলিগুড়ি আদালতে তোলা হবে।

Content Protection by DMCA.com

Leave a Reply

Your email address will not be published.